ও বৃষ্টি তুই থামলি কেনো, কাঁদছিলি তুই কাঁদ,
ঘর ভেঙ্গেছিস দোর ভেঙ্গেছিস, ভেঙ্গেছিস সব বাঁধ।


ঝরঝরিয়ে ঝরছিলিস তুই আরাম-বিরাম ছাড়া,
কতো জনার ঘর নিয়েছিস, খুশিতে পাগলপারা?
কত জনার ফসল নিলি- অন্ন কতক জনার,
বানের জলে ভাসালি যে কত, কে আছে তা গোনার?
আধেক পুরী ভাসালি মোর থাকবো আজি কোথা,
অথৈ জলে ভাসালি সব, মম তট নাইকো হেথা।
গরু নিলি বাছুর নিলি, কষ্টে গড়া স্বপ্ন নিলি,
চৈত্রেরও ঐ প্রখর তাপে, সর্বনাশী কোথায় ছিলি?
ডাকছিস কেন পাগল হয়ে, গুড়ুম-গাড়ুম ধমক দিয়ে,
তোর সর্বগ্রাসী রূপ যে আজি দুঃখ কষ্ট যায় বিলিয়ে।


ও বৃষ্টি তুই থামলি কেনো, কাঁদছিলি তুই কাঁদ,
মন ভেঙ্গেছিস প্রাণ নিয়েছিস, ভেঙ্গেছিস সব সাধ।