আমি মাথা তুলে আছি;
এক পুরোহিতের সঞ্চিত পাপ।


হে গর্ভজাত সন্তানেরা;
তোমরা এসোনা এই পাপ পাংশুতে।
পৃথিবী এখন দাবদাহ আগুন।
এখানে মানুষ তৃষা মেটায়
মানুষেরই রক্তে।
কুকুরদের পা চাটে কিছু বিকুন্ঠ মানুষ।
গায়েঁর দাদুরা এখন
শোনায় না রুপকথার গল্প।
চাঁদের কলঙ্কের কথা আজ সবাই জানে।
জানে;
নাড়ী গর্ভে জন্ম নিয়ে শিশু
একদিন নারীর আবরুকেই করে ধ্বংস।
এখানে এসোনা;
গর্ভজাত সারল্য সন্তানেরা।
চারুতার অংশুমালা নয়,
করে পাপাত্তাদের বীর্য স্খলন।
এখানের সংস্কৃতি আজ,
হয়ে আছে নগ্ন।
ধর্মের টুপি পড়ে আজ
ধর্মকেই করে চলে ধর্ষণ।
আর অন্যদিকে;
মানুষের কলজে চেটে খায়
বিলেতী কুকুর।
পাপের জলে ডুবে
কাঁপছি পাপের’ই ভয়ে।
মিছিল নিয়ে আসছে
একদল গর্ভজাত সন্তান।
অথচ;
অঘোরে ঘুমায় পাপিষ্ঠ পুরোহিত।
------------------