আমার জন্ম হয়েছে ১৯৬৬ সালের ১৫ অক্টোবর মুন্সিগঞ্জ জেলার শ্রীনগর থানাধীন দামলা গ্রামে নানাবাড়িতে। বাবার নাম : মোহাম্মাদ আরফান আলী শেখ, মায়ের নাম-মোছাঃ ইয়ারণ বেগম। তিন ভাইয়ের মধ্যে আমি মেঝ । ব্যবসায়ীক কারণে ১৯৬৭ সালে স্বপরিবারে আমার বাবা চলে আসেন লালমনিরহাটে। তখন থেকে লালমনিরহাটে স্থায়ী বসবাস। ফুলগাছ প্রাথমিক বিদ্যালয় থেকে শিক্ষা জীবন শুরু  এরপর গিয়াস উদ্দিন উচ্চ বিদ্যালয় থেকে ১৯৮৩ সালে এস.এস.সি এবং লালমনিরহাট সরকারী কলেজ থেকে ১৯৮৫ সালে এইচ.এস.সি পাশ। ১৯৮৬ থেকে ১৯৯১-এর জাতীয় সংসদ নির্বাচনের ৩ মাস পর পর্যন্ত চাকুরীরত ছিলাম বাংলাদেশ জাতীয় সংসদে তৎকালীন ডেপুটি স্পীকার আলহাজ্ব রিয়াজ উদ্দিন আহমেদ-এর ব্যক্তিগত সহকারী হিসাবে। তারপরের সময়টা গেছে বিদেশে। হংকং-এ জীবিকার তাগিদে। ১৯৯৫ সালের ফেব্রুয়ারীতে দেশে ফিরে ১৮ জুন ১৯৯৫ বিবাহ বন্ধনে আবদ্ধ হই লালমনিরহাটের থানাপাড়াস্থ মোঃ হাসান শেখ ও মোছাঃ পুষ্প বেগমের দ্বিতীয়া কন্যা মোছাঃ সাবিনা ইয়াসমিনের সাথে । ১৯৯৬ সালের ১ আগষ্ট জন্মগ্রহণ করে আমার প্রথমপুত্র শেখ মোহাম্মাদ সাইফুল ইসলাম শুভ। ঐ বছরই ২৭ নভেম্বর তাইওয়ান চলে যাই। ২০০০ সালে দেশে ফিরে ব্যবসা শুরু করি। এখনও করছি। ষষ্ঠ শ্রেণীর ছাত্র থাকা অবস্থায় আমার প্রথম কবিতা প্রকাশ হয় বদরগঞ্জ সরকারী কলেজ, রংপুর থেকে ভাষা দিবস উপলক্ষ্যে প্রকাশিত একটি স্মরণীকায়। দ্বিতীয়টি সাপ্তাহিক দাবানল (বর্তমান দৈনিক)পত্রিকায়। সেই পথ চলা শুরু । ১৯৭৮ থেকে ১৯৯১ পর্যন্ত সময়ে দেশের বিভিন্ন দৈনিক, সাপ্তাহিক, পাক্ষিক পত্র-পত্রিকাসহ পশ্চিমবঙ্গের কিছু কিছু পত্রিকা মিলে ছয় শতাধিক ছড়া,কবিতা,গল্প প্রকাশিত হয়েছে। এরপর দীর্ঘ বিরতি। ২০১০ সাল থেকে ২০১৪ পর্ষন্ত সময়ে স্থানীয় স্মরণীকায় মাত্র ১০/১২টা। ২০১৪তে পেলাম লেখালেখির এই ফ্লাটফর্ম, তাও আমার অগ্রজ স্বনামধন্য কথা সাহিত্যিক, কবি ও গীতিকার শাহ আলম বাদশা’র উৎসাহ ও অনুপ্রেরণায়।


লেখালেখির জগতে প্রাপ্তির ঝুলিতে আমার কিছুই নেই। ১৯৮৭ সালে দুই বাংলার ছড়াকারদের ছড়া নিয়ে আয়োজিত পশ্চিমবঙ্গে হুগলীতে অনুষ্ঠিত 'অতসী ছড়া প্রতিযোগীতা'য় ২য় স্থান লাভ করে আমার একটি ছড়া। ২০০৪ সালে লালমনিরহাট থেকে প্রকাশিত মাসিক রোদ্দুর পত্রিকা শ্রেষ্ঠ ছড়াকার সম্মাননা প্রদান করে। বর্তমানে স্ত্রী, দুই ছেলে ও এক মেয়ে নিয়ে আমার পরিবার।