বড় জানতে ইচ্ছা করছে— কেমন আছিস !


দুরন্ত নদীর বুকে কুড়িয়ে পাওয়া পরশপাথর ।
সন্ধানী চোখ খোঁজে
কেড়ে নেবে, কেড়ে নেবে, কেড়ে নেবে


হঠাৎ বেলা ফুরালো, রামধনু ছায়াপথের বাঁকে
বুনোহাঁস ফেলে— ছুট ছুট ছুট...


একটা সোনালি স্বর্গ পাখি
প্রতিদিন উঁকি মারত
আজ তার ডানায় লেখা— আমার প্রিয়...


বদলে গেছে এতদিনে । বৃষ্টিরা ধুয়ে নিয়েছে কান্না
এখন দিক্বিদিক অজানা ঢেউ— কোলাহল
সব অচেনা । কি বিশ্রী পৃথিবী, কি কালো অন্ধকার
পা ফেলতেই চমকাই । ওহ ! এখানে তোর একটা স্পর্শ
ওখানে তোর একটা স্মৃতি । এখানে ওখানে
সমস্ত পৃথিবী


অথচ নাগাল পাইনা— সেই পরশপাথর ।