উত্তপ্ত তেলে সাতরঙা ফোঁড়ন । ছ্যাঁত করে ওঠে―
বাসি বুকে কিছু পুরাতন― স্পর্শ ।
রাত জাগে সব অপ্রয়োজনীয় ভালোবাসা গুলো
যত না কষ্ট দেয়, তার অধিক আনন্দ ।
খুচরো-খুচরো, ভাল-মন্দ―
ভালোবাসা ।


তুই আছিস বোধহয়― নির্লজ্জ ভগবান !
ওরা বসে থাকে অপেক্ষায়― আর একটা সিজদায়
ঘটবে পরিবর্তন ।
নীলাভ আকাশ এখানে বারুদের গন্ধে ভরা
সেই আদিকাল থেকে― হিরোশিমা, নাগাসাকি... ।
ফিলিস্তিন মাতৃগর্ভে জেগে ওঠে বেগুনী নীল― গহ্বর
শিশু কেঁদে ওঠে বিকলাঙ্গ― রক্তাক্ত ।


জল পড়ে, পাতা নড়ে
জারি হয় পরোয়ানা ।
এখানে যুদ্ধ-যুদ্ধ― মৃত্যু-মৃত্যু― মার-মার খেলা ।
তোদের বিধাতা কি করে রোজ
গাড়ু হাতে ধুতে থাকে হাজার বছরের ময়লা
নাকি মানবের প্রার্থনা... !