একটা পত্র দিও, তরুবালা!
[email protected]@@


কখনও আমাকে ফেলে এ ধরণী রুদ্ধ করলে দ্বার,
জানলে একটা পত্র দিও তরুবালা, তুমি শুধু আর!
চাইবো না স্পর্শন কিছু
ধরলেও আকাঙ্খা পিছু
খুঁজবো না বর্ণিল স্বপ্ন
অন্তরে চষলে সে এসে প্রীতির পাহাড়।


আমারই বন্দের ধারে চাঁদনী নিশি ঢাললে প্রলোভন,
রাখবো না আফসোস দেখে করলে মেঘ সেও আলাপন!
রামধনুর স্নিগ্ধ তুলি
সাজালে জ্বলন্ত চুলী
শুনবো না বাঁশির সুর
চিত্ত তা সইলেও এঁকে গুমরানো ক্রন্দন।


সত্তা হলেই ঘরামী,
নিশ্চয় বাঞ্ছিত ত্বরা
সে’ পত্রের ছত্রে ছত্রে আজীবন খুঁজে পাবো আমি!


(অক্ষরবৃত্ত)
[email protected]@@
পাঁচুুপুর, আত্রাই, নওগাঁ।
০৭/০৫/২০২২ইং।



@বোরহানুল ইসলাম লিটন