সারা শব্দহীন,নিস্তব্ধ ঘুটঘুটে অন্ধকার,
চারিদিকে শুধু নির্জনতার স্পষ্ট ছাপ
আমি শুধু তুমিহীন একলা ।
রাতকে সঙ্গী করে তারাগুলো গুণে যাই
মুক্ত দিগন্তে উন্মাদের মতো চেয়ে।
কি যে যন্ত্রণা, কষ্ট, আর নীল বেদনা ,
আমার আমিকে আর ধরে রাখতে পারিনা।
মাঝে মাঝে শোনা যায়, ডাহুক পাখির কণ্ঠস্বর
ঝিঁঝিঁ পোকাড় একটানা আর্তনাদ ।
তুমিহীন একলা আমি, আমাকে মনে হয়,
অনুভূতিহীন, অসাড়, কোন জড় পদার্থ ।
কি আশায় বেঁধেছি আমি খেলাঘর
এ ভবে মায়ার সংসারে ।
তুমিহীন একলা, আমি প্রতিটি রাত জেগে
তারার পানে চেয়ে, কষ্ট বিলায়ে---
কখন যে হয়ে যায়, পাখি ডাকা ভোর,
তার খবর কে রাখে, কেইবা তা জানে।
শুধু অস্ফুট স্বরে রাতকে বলে যাই
আমি শুধু, তুমিহীন একলা ।