হে রবীন্দ্র্র্রনাথ
এখনো  আমাদের ধমনীতে তোমার      উজ্জ্বল উপস্থিতি।
আমাদের প্র্রত্যেক  উৎসবে , আনন্দে বেদনায়,
বিরহ মিলনে , উল্লাসে হিল্লোল,  অবরোধ প্র্রতিরোধে
তোমার ব্যপ্তির পরিধী বিশাল।


হে নব জাগরণের অগ্রদুত,
তোমারই প্রজ্জ্বলিত আলোকে
আলোকিত আমাদের প্রতিটি চিন্তন
শতাব্দির কুহেলিকার অবসানের ইঙ্গিত,
অবহেলিত  জনমানসের  সূর্যের  সমীপে  উত্তরণ।


হে বিপ্লবের কবি,
তোমার লেখনি হয়েছে আমাদের পথ প্রর্দশক,
তোমার বানী হয়েছে অমোঘ মন্ত্র,
হেনেছে আঘাত আমাদের  সুপ্ত চেতনায়,
হয়েছে পরাধীনতার   শৃঙ্খল  মোচনের ডমরু।
ধিকৃত করেছে  আমাদের সংকোচের বিহ্বলতা,
হয়েছে সংকটের  পরিত্রাণের  গায়ত্রী।


হে  যুগসন্ধিক্ষনের   কবি,
তুমি  আছো  আজও
অন্তহীন অসীম  সজীবতায়
অমরত্বের  আলয়ে।