নির্জন কোন এক রাতে
অন্ধকার ঘরে বসে তোমায় লিখেছি,
    তোমার সুখ-চাহিদা সব কিছু
তোমার ইচ্ছেমত জোগান দিয়েছি।
     তোমার নাম কী জিজ্ঞেস করতেই—
বলেছিলে, সে-তুমি জানো!
     বলেছিলে, আমি শব্দে আঁকা ছবি,
আমার নাম রেখেছ কবিতা।


কবিতা—নাম খানা শুনে বুকে লাগলো,
     কবে কোথায় যেন দেখেছি তাকে,
চিরচেনা লাগে অচিনদের ফাঁকে।


আমি সেই প্রথম খুব কাছ থেকে
     অনুভব করেছি সেই কবিতাকে,
অন্ধকার ঘরে নীরব আলাপন করেছি
     আঁধারের ছায়াতলে মিশে,
বন্ধুত্ব হয়ত একেই বলে, হঠাৎ—
      হৃদয়ের সাথে মিলিত হৃদয় কার্নিশে।