ঝিঁঝি পোকা গাছে গাছে গলা টাইনা ডাকে
সবুজ গাছের পাতার নিচে লুকিয়ে ফাঁকে ফাঁকে।
মধ্য দুপুর সাজ সকালে সন্ধ্যার ঘনো কাশ,
শিউলি শিমুল লালচে রঙিন ফুটেছে একরাশ।


ঝুনঝুনা সুর! মাতিয়ে যায় সকাল বিকেল বেলা,
পাখি ফুলে বনের কুলে মনচে উঠে মেলা।


মাঝে মাঝে কুকিল এসে ডাক দিয়ে যায় কুহু,
প্রজাপতি হাজার ডানায় বিকেল মাতায় হুহু ।
হলদে গাঁধা উঠুন ভরা বাড়ির ছাদের গাঁথা
মাঝে মাঝে বৃষ্টি ঝরায় ভেজায় পুষ্পা মাতা।


মাতছে শিশু শৈশব শৈলির হাসি মাখা মুখ,
মোচরে উঠা নতুন কুড়ির বঁধুর রুপির সুখ।
ফুল ফুটেছে গাছে গাছে মধুর বাতাস বহে।


গোলাপ হাসে দুর্বা হাসে কচি ডগার পাতা,
আমরা লিচুর ভ্রূনের হাসি খুলছে নতুন খাতা।
নাই উষ্ণতা নাই শীত ভর বর্ষার ঝরা দিন
ফুলের মাসের গন্ধ ভাসে বাসন্তীর বাবিন।


কবি গাইছে শিল্পী গাইছে বসন্তী হাত পিছে,
আজ এলোরে বসন্ত দিন আমার পিছে পিছে।


স্বরবৃত্ত ছন্দ