অন্য এক আমি


পত্রিকার পাতা
ধর্ষণে ভরা
পরিবার ছাড়া
কারো কিছুতে
আমার কিছু
আসে যায়না।
আমি নরপশু,
আমি হিংস্র জানোয়ার,
আমি নেড়িকুত্তা,
আমি হায়না।
নিজের স্বার্থ
সবাই বুঝে
ভাবেনা কেও অন্যের,
অর্থের ক্ষমতার বলে
কোটা আর স্বজনপ্রীতির
হয়রানির রাজনীতি
আর কতদিন চলবে?
আর কত
সৃষ্টি হবে
আমার মত?
আমি ভাংখোর,
আমি গাঁজাখোর,
আমি মদখোর,
আমি মাতাল,
কারো কিছুতে
গরম হয়না
আমার তাতাল।
কার ছিড়লো
কার ভাংলো,
কার মচকালো,
কোন দেখবো আমি?
আমি নেশাখোর
জানে দেশবাসী।
আমার সকল
বাধা বিপত্তিকে
বিজলীর বেগে
ভেঙ্গে চুরে
করবো চুরমার।
আমি বাটপাড়,
আমি চোর,
আমি ভন্ড,
আমি ছিন্তাইকারি,
পড়ালেখা কেন
করবো আমি?
প্রশ্নতো হবেই ফাঁস?
জাতীর পশ্চাতে
দিয়ে বাঁশ
জাতীর করবো সর্বনাস।
প্রশংশাপত্র থাকলেই হলো,
নামের শিক্ষায়
শিক্ষিত হলেই হবে?
কোথায় চাকরি?
টাকা যার
শিক্ষা তার
এই নীতি
গেছি ভুলে,
টাকা যার
ক্ষমতা তার
চাকরি তার
এই নীতি
কবে যাবো ভুলে?
আমি পাগল,
আমি বউরা,
আমি টাল,
আমি তারছেড়া,
আমি বুঝি
শুধু আমার,
কার কি হলো
তার ধার ধারিনা।
আমার জীবনের
সব আন্ধার
সরাতে আমি
দিনের আকাশে
উঠাবো রাতের
উজ্জল শশী।
কেন আজ
আমি এমন
বোঝেনা কি কেউ?
আমি একা
আমি আমার রাজা
আমি সুলতান
আমি বাদশা
আমি সবার
থেকে আলাদা
আমি আমার
জীবনের শাহেনশাহ।