অমাবস্যার  রাতে, ভুতুম পেঁচা হয়ে
কোন একদিন দেখা দেবো
মেঘের খেয়া পারে।


দেখা দেবো বিরক্তিকর
দুপুর রোদের ঘামে,অসহ্য
ধাৎতেরি সব,ভ্রু কোচকানোতে।


দেখা দেবো কন কনে এক শীতে
কাঁপা কাঁপা ঠোঁটে হাসি নিয়ে
মিথ্যে কোনো নামে।


দেখা দেবো বৃষ্টি ভরা স্নানে
যায়গা পাওয়া একটি ছাতার তলে
চিলে কোঠার ছোট্ট বারান্দাতে।


দেখা দেবো না চাওয়াতেই
এক ক্ষনিকের ভুলে
কোনো এক ব্যাথার দানে
কবিতার, মিল অমিলে।


হয়তো বা হবেই দেখা
না দেখাদের ভীড়ে
চেয়েছিলে বন্ধু যারে
হবে দেখা,ঝগড়ার সুরে।


হবে দেখা,কাশবনে
গহীন জঙ্গলেতে
ভাদ্রের অর্ধ চাঁদে
আমার পাগলামিতে।


থাকনা বাকি দেখা দেখি
নিলাজ ছোট্ট আশে
মনের চোখের পাওয়ার বারুক
দারুন সর্বনাশেে।  

দেখাতেই সব দেখা শেষ
না দেখানো ভালো
ভালোবাসায় বাড়তে থাকে
জীবনের আলো।