*সরষে-হলুদ পাব কোথায়, এলামানডা ফুল
প্রভাতবেলা শিস দিয়ে যায় বুলবুলি-বুলবুল।
            সরষে-হলুদ শাড়ির গায়ে
              বর্ষারানির নূপুর পা'য়ে
  পাখনা মেলা প্রজাপতি, কানে ঝুমকো দুল।


  ফুলের শোভা, পাখির ডাকে প্রফুল্ল রয় মন
   বৃষ্টি-ভেজা শিউলিরানির প্রাণভরা যৌবন।
               ফুল-সুবাসে পূর্ণ গেহ
               ওটুক পেয়ে সুস্থ দেহ
     মাধবী আর কামিনীও সঙ্গ দেয় এখন।


     এখন গাছে ফুটে আছে কত রকম ফুল
    প্রজাপতি ভ্রমর আসে, খুশি জুঁই পারুল।            
             মধু পিয়ে আপন মনে
             বিরহী মন প্রহর গনে
   টাপুর টুপুর বাজে নুপুর মন করে চুলবুল।


   বৃষ্টি ভেজা আঁচল গায়ে ডাক দিল কে ওই
  স্বপ্ন তো নয় সত্যি এ যে দুয়ারে আজ সই।
             কী দিয়ে যে বরন করি
               দাওনা বলে সহচরী
     হাস্যমুখে মাল্য নিয়ে শুধুই চেয়ে রই।