আমি হলাম স্বর্ণ গ্রামের,
মোড়ল মিয়ার নাতি।
জন্মের পরেই বাবার ঘরে,
লাগতো না আর বাতি।
মামার ঘাড়ে ঘোড়ায় চড়ে,
দেখতে গেলাম হাতি।
ভিড়ের মাঝে নিথর বেশে,
দাড়ানো দেখি সাথী।
সেই যে দেখায় আজও আমি,
হাসা হাসিই মাতি।
উপর থেকে ফুল ছুড়তেই
নিলো সে হাত পাতি।
খোদার তরে কেঁদে তারে,
চাইতাম সারা রাতি।
তাই তো সে আজ হয়ে আছে
আমার জীবন সাথী!!!