একটুখানি শান্তি খুজি,
                     এই কবিতার মাঝে।
যেমনি পাখি নীড় খুঁজে,
                         রক্তমাখা সাঁঝে।
শিশিরভেজা ভোরের হাওয়া,
                     যেমনি পাখির সুরে।
অদূর পল্লি ডাকে মোরে,
                     তেমনি প্রতি ভোরে।
সেইসব যেনো হারিয়ে যাওয়া,
                          স্মৃতি শুধু আজ।
অদূর পানে চেয়ে থাকা,
                     সেটাই ছিলো কাজ।
কিংবা সবুজ বাগানেতে,
                      শুধুই হেঁটে যাওয়া।
সেগুলো যে স্মৃতি শুধু,
                  আজ যাবে কি পাওয়া?


জীবন যেনো শুধুই স্বপ্ন ,
                   কালের স্রোতে ভেসে।
দিবানিশি যায়রে কোথায়,
                      তুমুল হেসে খেলে।
এমন করে জীবন আমার,
                       যাচ্ছে ক্রমে ক্ষয়ে।
কাব‍্যঝর্ণা এরই সাথে,
                         যাচ্ছে সুখে বয়ে।
দূরগগনে রঙমেখে যায়,
                           রঙধনুটা এসে।
সে রঙ ফুটাই আমার খাতায়,    
                         দিব‍্যি বসে বসে।
কিবা পদ‍্য কিংবা গদ‍্য,
                   কবিতা কি সব বলো?
কবিতা হলো সেটাই,যেটা
                   হৃদয়ে জ্বালায় আলো।