গোধূলি আলোক নিভে একাকী সন্ধ্যালোকে
দিনের সূর্য নামে অন্ত সাগরে
মরীচিকা ঢেউ খেলে ধূসর নীরব চরে
নীল আকাশের মেঘ রাঙা সুস্মিতা।


রাত হেঁটে পিছু ফেলে ভোরের সূর্য টেনে
ঊষার সকাল সাজে কবিতার গাঁথা
মরীচিকা মরুভূমি যে দিকে তাকাই তুমি
চোখ বুজে স্বপ্নের মায়া সুস্মিতা।


নদীর এপাড় ভেঙ্গে ওপাড় স্নিগ্ধ বনে
সাদা কাশফুল খেলে ঢেউ নবনিতা
রাঙা কুন্তুল ঝরে ঝরনার রূপে ঝরে
পদচারনা চিরে নীলা সুস্মিতা।


রাস্তাটা পীচ ঢেলে ডানে বাঁয়ে পিছু ফেলে
চাঁদের বদলে খোঁজে নীল ব্যাকুলতা
সকাল হারিয়ে যায় সন্ধ্যা আঁধার নামে
সাগর পাহাড় নদী রাঙা সুস্মিতা।


শরতে আকাশ নীল শ্রাবণের অনাবিল
শীতের কুয়াশা এসে কমে প্রখরতা
চুপি চুপি মেঘ ঝরে হৃদয় শূন্য পাতে
নিশি নিস্তব্ধ ছবি আঁকা সুস্মিতা।


(বুধবার, ২৬ জুন ২০১৯, ১২ আষাঢ় ১৪২৬, ২২ শাওয়াল ১৪৪০)