পুরুষ্কার (ব্যঙ্গ)
     এম এ সালাম
          ২৫-০৮-১৯


মিথ্যায় যদি বকশিশ পায়-
    ওই পাড়ার বউ পায় আগে,
শতকোটি মিথ্যা কথার ভার
      বুঝি পড়ছে বউয়ের ভাগে।


কথায় কথায় মিথ্যে বলে-
     বন্ধুরা মনে হয় সব সত্য,
সাজিয়ে গুছিয়ে এমনি ভাবে
    হায়!  কেমনে করিল রপ্ত।


এলাকার  ভদৃষ্টদের সর্ম্পকে-
     মিথ্যে কথা এমনভাবে বলে,
মনে হয় যেন পৌষ মাসেই
     ওই ভাদ্রের আউশ ফলে।


মাঝে মাঝে ক্ষমতার জোর-
    এমন ভাবে দেখায়,
মাছের জোরে নাচে বউডা
     ঝিকে মেরে শেখায়।


সতত পোড়া মুখে কথা বলে-
     ভাবখানা তার এমন,
দেখাইতে চায় গাঁয়ের লোককে
      স্বভাব তাহার নরম।


স্বার্থে যদি আঘাত লাগে-
     আইনের কথা বলে,
সন্মানহানীর কথা বলিয়া
     স্বার্থ লুটিয়া চলে।


লাজ-শরম নেইরে কিছু-
     তাকে যে যা বলুক গাঁয়,
নিজের দোষ চোখে দেখে না
     অন্যের দোষ ধরে পায়ে পায়ে।