ঝরিতেছে শিউলি ফুল, ঝরিতেছে অন্ধকার
ঝরিতেছে চোখের জল দেবদারুর ছায়া তলে
চোখ পুলিতেছে, চোখে ঘুম নেই, সুখ নেই
বাতাসে সুখ ঠেলিয়া নিয়ে যায় গঙ্গার জলে।
গাঙচিল উড়িতেছে, ঝরিতেছে সাদা পালক পুকুরে
পুকুরে-পুকুরে ঝরিতেছে অভিশাপ;
প্রজাপতি রং ঢালিয়া দিয়েছিলো আমার গায়ে
কোনো এক দিন সে দিন আমি সুখ ছিলাম
কচি পাতার মত, কচি ফুলের মত, কচি ফলের মত;
আমার গায়ে রং ছিল, সুখ ছিলো,
সে দিন আমি সবার ছিলাম, সবার শখ ছিলাম।


বনে বনে কাক আর কোকিল বাসা বাধিতেছে
বন ছাড়া যে কোথাও ঠাঁই নেই;
অন্ধকার আর নির্ঘুম চোখে শান্তি নেই,
আমিও তাহাদের সাথে বাসা বাধিতেছি
শান্ত দেবদারুর শুকনো পাতা আর ঢাল দিয়ে
আমাকে একটু ঘুম আর শান্তি দেও
কত রাত ঘুমাইনি
হে চাঁদ, হে তারা, হে অন্ধকার।