আমি অস্বাদ তোর লয়ে?
বিস্তৃত মধু কাননে অবাধ্য মন, দুঃখে-দুঃখে    
আনমনে বিষাদ দেহ ক্ষয়, ভয়ে-ভয়ে
তোর শরীরের ঘ্রাণ দূর থেকে ডাকে, সুখে-সুখে ।

তোর কথা ভেবে ভেবে হারাই কোন কুলে
আবার হবে কবে দেখা কোন সে ভোরে?
তোর চোখ দেখে দেখে সব যাই ভুলে
বার বার তোর তরে আসি ফিরে ফিরে।


শরীরের সাথে শরীর নয়, মনের সাথে মন
চোখের সাথে চোখের কথা, ভাষা হবে ব্যকরণ
চোখের ভাষা বুঝিসনা তুই, নাকি করিস অভিনয়
তোর জন্য মনের ঘর তিলে তিলে উদয়।


তোর ঘরে ভয়ে ভয়ে তোকে খুঁজি বারে বারে
তোর দেখা মিলে গেলে মন আর কাঁদে নারে
দূরে গেলে মরে মরে মন আমার মানে নারে
ভালোবাসা খোঁজে তোরে, তোর মনের দ্বারে-দ্বারে।


আজও কি বলবিনা লুকানো ভালোবাসার কথা?
তোর দুয়ারে কত অবহেলা, বেলা-অবেলা?
চোখ বলে সব অভিনয়, ভালোবাসা তোর হৃদয়ে গাঁথা
ভালোবাসা দে,না ঠেঁলে দূরে,করিসনা মোরে হেলা।