গত 22.11.19 তারিখে 'গণিত ও কবিতা 'নিয়ে একটি আলোচনা দিয়েছিলাম।গাণিতিক কবিতা নিয়ে আর একটি তথ্য নজরে আসায় যুক্ত করলাম।


কলকাতা বিশ্ববিদ্যালয়ের পিয়র ম্যাথামেটিকসে এম এস সি পাঠরত ছয়জন ছাত্র খুঁজতে শুরু করেছিল সাহিত্যে গণিত এবং গণিতে সাহিত্য ।এ ধরনের সাহিত্যকে তারা প্রথম নাম দেন 'গাণিতিক সাহিত্য'।জানুয়ারি, ১৯৮০ তে তারা এ বিষয়ে প্রথম প্রকাশ করেন 'ছয়' নামে একটি পত্রিকা।তারা ছয়জন কে কে ছিলেন তা আজ আর জানা না গেলেও জানা যায়, চিরঞ্জয় চক্রবর্তী, অনুপ সেনগুপ্ত এবং মানস বসুর নাম,যারা প্রথম থেকে এই পত্রিকার সাথে যুক্ত ছিলেন।যুক্ত ছিলেন মিহির চক্রবর্তী নামে এক অধ্যাপকও।


অধিকাংশ লিটল ম্যাগাজিনের পরিণতি যা হয়,এক্ষেত্রেও তা ব্যতিক্রম হয় নি।মাত্র সাতটি সংখ্যা বেরিয়ে তিন বছর পরই বন্ধ হয়ে যায় পত্রিকাটি।এই স্বল্প সময়কালে বাংলা সাহিত্যে গাণিতিক সাহিত্য এক আলোড়ন ফেলতে সমর্থ হয়েছিল,তার প্রমাণ সমসাময়িক বিভিন্ন পত্রিকায় প্রকাশিত আলোচনা- সমালোচনা থেকে পাওয়া যায়।গাণিতিক সাহিত্য,সাহিত্য জগতে নিঃসন্দেহে  এক আন্দোলন ছিল,বলাই যায় ।