জাগো যাজ্ঞসেনী
✍-উজ্জ্বল সরদার আর্য  


             অম্বরে অভ্র জমেছে ইন্দ্র ক্ষেপেছে
                     আজ বজ্র ছুড়েছে রে,
                রক্তাক্ত রণক্ষেত্র বেধেছে কলহ
                    দ্রোণের-দ্রোহ দেখা রে।
                দহনে পুড়িয়ে পাহাড় দলিয়ে
                      ছুটে চল ওরে তোরা,
                 চণ্ডিকার বেশে ওঠরে রুষে
                           রক্ত ঝোরা।
                    ওই অস্ত্র হাতে ছিন্নমস্তে
                        রক্তবীজ হবে দমন,
                      রক্ত পানে প্রাণ দানে
                          জনতা জাগরণ-
                 করেছে হরণ মা-বোন কে ওরা!
                    গভীর অন্ধকারে বদ্ধ ঘরে
                        করছে ধর্ষণ হয়নারা।
              নিয়েছে নিরীহ নারীর পোষণ খুলে
                     দিয়েছে দেহে মদ্য ঢেলে,
                       লুটেপুটে খাচ্ছে চেটে
                দিচ্ছে জরায়ু জমিতে বীর্য ঢেলে-
                        করছে অবৈধ চাষ!
                    নখের আঁচড়ে স্তন ছিঁড়ে
                          করছে উল্লাস ।  
               কেঁদে-কেঁদে অবশেষে হয় শান্ত
                 ‘মৃত্যুতে মর্মাহত’ কে জীবিত?
                      আমি তো জীবন্ত লাশ!
                  ওই করুণ বীভৎস দৃশ্য দেখে
                        অশ্রু নেমেছে চোখে
                     রাহু-রবিকে করেছে গ্রাস।


                       এভাবে কত হচ্ছে ক্ষত
                           মরছে দিনে রাতে,
                         কত দেহ করবো দাহ
                              অকাল-অন্তে।
                       আজ কোলেতে প্রিয়জন
                          চলছে নিস্তব্ধ শাওন
                           ও-যে নিদ্রায় রত,
                    ক্ষতবিক্ষত রক্তাক্ত দেহ দানে
                      জাগালো বিদ্রোহ এই প্রাণে
                               হয়েছে ধর্ষিত ।
                   ওগো-কথা বলো নয়ন খোলো
                        চলন গেছে আজ থেমে,
                     করি হায়-হায় হয়ে নিরুপায়
               তবু সংশয় পেরিয়ে নেমেছি সংগ্রামে।
                  আজ আমি না জীবিত না দেহান্ত
                       না কোন ভয়ে-ভিতু সৈনিক,
                   তোদের মৃত্যু আমি রাঙাবো ভূমি
                       শত্রুদলন করবো চারিদিক।
                    নেবো প্রতিশোধ দেখবি ক্রোধ
                       শত দ্রৌপদী পাবে বিচার,
                     অন্যায়ের বিরুদ্ধে দল বেধে
                          ওদের নিপাত কর।


                হুংকার ছেড়েছি হয়েছি রক্ত পিপাসু
                      কোথায় সে-সব বন দস্যু?
                    আজ নেবো প্রাণ করছি আহ্বান
                           আয় প্রকাশ্যে পশু।
                      আছি অস্ত্র হাতে রণ-ক্ষেত্রে
                          ত্রাহি-ত্রাহি রব উঠিয়ে!
                      করছি যুদ্ধ, করছি বিধ্বংস,
                          কংসের দেহ দলিয়ে।
                   স্কন্ধে সতী দিয়েছে প্রাণ আহুতি
                         দুর্গতি নেমেছে তোদের!
                  আজ স্বর্গ, মর্ত, পাতাল দলিয়ে,
                     নটরাজ নৃত্যে নরক তলিয়ে,
                         আসুক প্রভাত আবার-
                          জাগো যাজ্ঞসেনী!
                         রক্ত ধারায় স্নাত করে
                      কেশ ধৌত করো মন ভরে
                       এসো হে দণ্ড দাত্রী তরুণী।



✍-উজ্জ্বল সরদার আর্য
রচনাকাল ইং ৭ আগস্ট ২০১৯ সাল    
বাংলা ২১ শ্রাবণ ১৪২৬ বঙ্গাব্দ ( বুধবার)
দাকোপ খুলনা বাংলাদে।