জাগরণ গীতি
-উজ্জ্বল সরদার আর্য


          রাতের আঁধারে বদ্ধ ঘরে
               ঘুমিয়ে তুমি কে,
       প্রভাত দ্বারে এসে ভালোবেসে
              ডাকে তোমাকে!
      তুমি জাগো-জাগাও অলস মনে
       জাগরণ গীতি এই করুণ দিনে,
       দারিদ্র ছুঁয়েছে নয়নে ক্ষণেক্ষণে
         পথে পড়ে  তাই ওরা থাকে।
       মৃতকল্প তরু'তে ফুটবে কি ফুল
         চিন্তিত জননী থাকে শোঁকে।।


         তাই ছুটে চলো রক্ত ঢালো
                 রঙিন পথে,
        প্রাণ দিয়ে প্রাণ নিও সঙ্গ দিও
                  একসাথে।
        আজকের এই স্বাধীন চেতনায়
         তুমি কি যাবেনা নব যাত্রায়,
              শত্রু মোকা বেলায়
            সৈনিকের শক্ত হাতে।
      আমার ক্ষত বুকে বিদ্রোহ আঁকে
            তোমার নি'বীর্য রাতে।।


        কত আর হবো ক্ষত মর্মাহত
              ধরবো ধৈর্য ধারণ,
        ওরা চাবুক মারে রক্ত ঝরে
             রক্ত করে আহরণ।
      তাই করেছি শরণ বি'দায়ের দিনে
        তুমি তরবারি ধরো শক্ত মনে,
         হবে রণ রঞ্জিত রক্ত প্লাবনে
          উঠুক বিধ্বংসী সাইক্লোন।
      জুড়া'বে তবে প্রাণ গাবো জয়গান
           হবে ছিন্ন শিকল বাঁধন।।


     আরো ঝরবে শিশির নিথর রাতে
       শারদ প্রাতে সাজাবো স্বদেশ,
         হবে ওরা ক্ষয় দুর্ভিক্ষ জয়
      থাকবেনা কোন বিবাদ বিদ্বেষ!
    বসন্ত বনে ফুটবে ফুল, প্রাণ দানে
   তুমি জাগো’জাগো এই প্রভাত ক্ষণে।
     আজ এসেছে কবি তোমার শ'রণে
             দেখবে বীরের বেশ
        তুমি ওঠো গর্জে গগন মাঝে
         ডেকেছি  মুক্তির সমাবেশ।।


উজ্জ্বল সরদার আর্য
রচনাকাল ২৬ সে মে ২০১৯ সাল
এবং বাংলা ১১ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৬ বঙ্গাব্দ
রবিবার সকাল ১০.৪ মিনিটে।