আমার প্রিয়ার ঠোঁটে গোলাপের পাপড়ি কথা কয়।
তার পায়ের শব্দে যেন নুপুরেরা হাহাকার ধ্বনি তোলে।


এক যে আকাশ - তার তারা ভরা এক রজনী এনে আমার প্রিয়ার অধরে রাখ।


যদি সূর্য-চন্দ্র-নক্ষত্র সব একাকার হয়ে যায় তবে আমার প্রিয়ার এক হাসির তুলনা হবেনা।


রবীন্দ্র-নজরুল সব একসাথে বসে যদি একটি কবিতা লেখে তাহলে সে কবিতায় আমার প্রিয়ার গুণকীর্তন শেষ হবেনা।


ওগো মোর বেহেস্তী-হুর - তোমরা একসাথ হয়ে একবার আমার প্রিয়ার পদতলের কাছে এসে নাচো।


সপ্তম আকাশ-তুমি দূর-দূরালয় হতে তাকিয়ে থাক আমার প্রিয়া এখানে বসে থাক্।


আমি এই পৃথিবীর সব পূজা একসাথ করিয়া তার নয়নে একটি গল্প সমর্পন করব।


যদি আর কোনদিন কেউ এই পৃথিবীতে না থাকে তবে যেন আমার প্রিয়া এখানে সিংহাসন গেড়ে বসে থাকে