নিশ্ছিদ্র অন্ধকার মুখোমুখি, কেউ কাউকে দেখছে না, আপন ভাইয়ের মতো অবয়ব স্বভাব
অথচ কেউ কাউকে চিনছে না।


এক আঁধার গিলছে প্রকৃতির শরীর
আরেক আঁধার ভোগ করছে মানবতার দেহ,
একদল যুদ্ধবাজ আর আরেকদল সভ্যতা
লোভী। দুই পক্ষ‌ই ধোকাবাজ ও মিথ্যেবাদী আবার গায়ে সাইনবোর্ড ঝুলানো প্রেমিক ।


ওরা ওৎ পেতে দেখছে মৃত্যুর মিছিল, শান্তির নেপথ্যে আঁকছে ধ্বংসের বীভৎস স্কেচ। অথচ এই অন্ধকারের পুজা হয়, কীর্তন হয়, সুনাম কীর্তনে শামিল হয় জৈবিক পাশবিক মানুষ।


মানব প্রকৃতি নিয়ে খেলতে খেলতে নেশা হয়ে যায় আঁধারের, এদের পুতুল খেলায় বলি হচ্ছে
মানুষ, যারা হাততালি দিচ্ছে তারাও মানুষ।




১৬ মে ২০২৩