ছোট্ট একটা পাখি এলো
আমার নীরব ঘরে,
ওর আওয়াজে ভাঙ্গা মনটা
গেল যেন জুড়ে।


কি অপরূপ গায়ের গড়ন
শ্বেত শুভ্র ও কালো,
এমন রূপের মোহে আমি'
বেসে ফেলেছি ভালো।


আদর করে দিতে চাইলে
ছুটে গেল দূরে,
ও পাখি তুই যাস না রে
আমায় একলা করে।


দুরন্ত সেই দস্যি পাখি
মনটা নিলো কেড়ে,
ভাবছি আমি সকাল হলে
দিই কি করে ছেড়ে?


মন চাইছে পাখিটিকে
আপন করে পুষি,
ওর সোহাগে ভরবে মন
হৃদয়টা হবে খুশি।


যদিও
জানি বন্যেরা বনে সুন্দর
শিশুরা মাতৃক্রোড়ে,
পাখি পালার স্বপ্ন মন
ঘুম ভেঙ্গেছে ভোরে।


চুপি চুপি গেলাম কাছে
দিলাম তাকে খাবার,
চোখের ভাষায় বুঝিয়ে দিল
সময় হয়েছে যাবার।


উদার মন উজার করে
দিলাম খুলে বাতায়ন,
মুক্তমনা পাখিটিও
পেল সবুজ বন।