এটা কি লাশ কাটা ঘর?
চারিধারে জমাট আঁধার
কে আমায় খুন করে হয়েছে ফেরার
নারী বলে এভাবে হবে অবিচার?


জগৎ হলো না দেখা; অসীম আকাশ
থেমে গেলো হৃৎপিন্ড, উষ্ণ নিঃশ্বাস
মুদে এলো আঁখিপাত, স্তব্ধ দেহকোষ  
আহ্ আমি অচেতন, চলৎশক্তিহীন
এই আমি প্রাণ ছেড়ে সীমাহীন
মৃত্যুর মাঝে হয়ে গেছি লীন।


অথচ আমার  কী সাধের কৈশোর
মায়াভরা আঁখি দু'টি নীলাভ-শ্যামল
আধ-ফোটা যুঁথিকা মেলেছিল দল
বৃষ্টির ছাঁট মেখে হরষিত রেণু উদ্বেল
কী-যে এক মদিরতা; তনুমন তখন বিভোর
আমার ভূবনে গান, বসন্ত বাহার!


নরকের কীট এলো যমের আকার
তাহার ছিল না বোন, জননী-জঠর
দলিত-মথিত করে গেঁড়ে দিল গোরে
যতনে কে নিয়ে এলো লাশ কাটা ঘরে!


পারে না ফিরিয়ে দিতে এ অমূল্য প্রাণ
কে পিশাচ করে তার জীবন হরণ?
আমায় ফিরিয়ে আনো অবনীর 'পরে
যেথায় সোনালু ফুল ফোটে রোজ ভোরে!


১০ জুলাই ২০১৯
মিরপুর।