শুকনো স্তবক পদ্মফুলের, শুকনো জলাশয়...
শুকনো তোমার চোখের কোণা, শুকনো এ হৃদয়।
আর্দ্র শুধু আবহাওয়া, বৃষ্টির নাই তো দেখা...
তোমায় ছাড়া আজকে আমি ভীষণ রকম একা।
কালো চোখের মণি দেখি, দেখি গোলাপী ঠোঁট!
প্রেমিক চয়ন করতে হলে, আমায় দিও ভোট।


বেশ ছিলাম নিজের মতো, ভাবিনি তো এসব:
তুমি হবে রাধে প্রিয়ে, আমি লম্পট কেশব।
কাঁখে রাখা মাটির কলস, ভাঙবো প্রেমের আঘাতে...
আদর দিয়ে ভরিয়ে দেবো, রাগ করবে তাতে?
শুকনো ঠোঁট ভিজিয়ে দেবো, পিরিত চুমু দিয়ে...
সোহাগ করে জড়িয়ে নিও, আঁখি দুই মুদিয়ে।


বসন্তে গ্রামের পলাশ, বর্ষায় নদীর জল...
তুমি আমার গ্রীষ্ম দিনের রসে ভরা ফল।
শরৎকালে কাশের শোভা, হেমন্তে শিশির!
তুমি ছাড়া শীত আমার একলা একার নীড়।
বারোমাসি প্রেমী তুমি, আটপৌরে ভালোবাসা...
তোমায় নিয়ে কাব্য লেখায়, আমি ছোট্ট চাষা॥