.            রুবাইয়াৎ-ই-অজিতকুমার ৫৭


                      দুশো পঁচিশ


শিরে আঘাত ঝটপটানি ক্ষণেক পরেই শব, নিথর
আখের মতো হচ্ছে পেষাই আমজনতা নিরন্তর।
  যাদের হাতে সব ক্ষমতা তাঁরা নীরব নির্বিকার
   কেন এমন দমনপীড়ন কে দেবে এর সদুত্তর।


                     দুশো ছাব্বিশ


আলো-ঝলমল বিয়েবাড়ি জীবনের এক সন্ধিক্ষণ
  ফেরার পথে নারীর ওপর অমানুষিক নির্যাতন।
শুনেই মায়ের বুক ধড়ফড় উড়াল দিল প্রাণপাখি
  মাংসাশী ওই নরপশুর চরম শাস্তি, চাই মরণ।


                     দুশো সাতাশ


   গুরুগৃহে, বিদ্যালয়ে নেয় না এখন ছাত্র পাঠ
অনলাইনেই পঠনপাঠন ঘাসে ভর্তি খেলার মাঠ।
কেবল তোমার ইস্কুলে নেই লকডাউনের ভ্রুকুটি
  দ্রাক্ষারসে গলা ভিজাই না হলে যে শুষ্ক কাঠ।


                     দুশো আটাশ


টিকাকেন্দ্র মদের দোকান দু'জায়গাতেই ভীষণ ভিড়
     মরণবাঁচন সমস্যা যে অনুসন্ধান শান্তিনীড়।
সংক্রমণের মাত্রা কমায় কোভিশিল্ড ও ভ্যাকসিন
মদেও নাকি সুফল মেলে সম্পর্ক  যে খুব নিবিড়।