গালে হাত দিয়ে একা বসে ভাবি
কী নির্দয় বড়দের এ’পৃথিবী।
মুখে বুলি ফোটবার সাথে সাথে
মোদের পাঠায় স্কুল পাঠশালাতে।    


বোঝে না স্যাররা কত দুঃখ কষ্ট
সহে মোরা বেঁচে থাকি পৃথিবীতে।
রাতে পড়ার শেষে ঘুমোবার লাগি
আর কতটা সময় থাকে হাতে?


তবু কেন ছাড় নেই শিশুদের
রোজ ভয়ে মরি দেখে স্যারদের
তারা পড়তে বলেন দুই বেলা
শৈশবেই ছাড়তে হবে সব খেলা?


রোজ রোজ স্যারদের প্রশ্ন বাণ
কে,কোত্থেকে দিয়ে যায় কো জোগান?
এতো সব প্রশ্ন কে কোথায় পান?
ঝলসে দিতে সব সাবলীল প্রাণ!