দেয়া-নেওয়া
রণজিৎ মাইতি
-------------


কিই-বা আমায় দিতো পারো?
দুঃখ কিংবা বিষাদ ছাড়া!
এর বাইরে যা যা দেবে,
লিষ্টি দিয়ে জানিয়ে দিও।


দেবে আমায় ফুলকো লুচি,
বেগুনভাজা তাহার সাথে?
জানি আমায় যা যা দেবে,
সেটাই তোমার ভালোবাসা।


দিতো পারো বেলির সুবাস!
গন্ধমেদুর জুঁই-শেফালি?
কিংবা সোহাগরাতের গন্ধ দিয়ে,
ভরাবে কি আমার আমি?


জানি তুমি কি কি দেবে,
যে গন্ধে আপনি ভরো।
তার বাইরে যা যা দেওয়া,
আকাশকুসুম সবকিছুই!


সুখের আশায় দুঃখ বাড়ে,
তবুও তুমি ব্যতিক্রমী।
চারপাশে তার চাষ দেখেও
সেই অধীনের পায়ে নমি!


সুখের আশায় বাড়ে বিষাদ,
আলোর গন্ধে রাত।
পথে নামলে পথ বেড়ে যায়,
তবু পথেই মানুষ কাত।


কে-বা দেবে একফোঁটা জল!
গুড়-বাতাসার চিন্তা অলীক।
বলতে পারি শান্তি দিও,
কিন্তু শান্ত থাকতে ক'জন জানে?


তুমি আগুন যদি নাইবা দেবে,
কয়েক ফোঁটা বৃষ্টি দিও।
ভালোবাসা না দিলেও,
নিও আমার ভালোবাসা।


তেমন কথা বলার জন্যে-
আকাশ সমান হৃদয় লাগে।
একটা দরাজ হৃদয় লাগে-
দিল দরিয়ায় কাটতে সাঁতার।।